রাজবাড়ীর গোয়ালন্দে আ’লীগ নেতা উপর হামলার ঘটনায় মামলা,, সন্ত্রাসী দের গ্রেফতারের দাবিতে সাংবাদিক সম্মেলন

রাজবাড়ীর গোয়ালন্দে আ’লীগ নেতা উপর হামলার ঘটনায় মামলা,, সন্ত্রাসী দের গ্রেফতারের দাবিতে সাংবাদিক সম্মেলন

রাজবাড়ীপ্রতিনিধীঃরাজবাড়ীর জেলার গোয়ালন্দ উপজেলার জমিদার
ব্রীজ এলাকায় সোমবার রাতে জেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক
প্রদীপ্ত চক্রবর্তী কান্ত ও ব্যাবসায়ী আলাউদ্দিন মোল্লার উপর হামলার
ঘটনায় মঙ্গলবার বিকেলে গোয়ালন্দ ঘাট থানায় মামলা হয়েছে।
এ ঘটনায় গোয়ালন্দ উপজেলা আওয়ামীলীগ মঙ্গলবার দুপুরে সাংবাদিক
সম্মেলন করে ঘটনার তীব্র নিন্দা ও দূর্বৃত্তদের দ্রুত গ্রেফতারের দাবি
জানিয়েছে। তা না হলে কঠোর আন্দোলনের ঘোষনা দেয়া হয় সাংবাদিক
সম্মেলনে।


আহত জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক প্রদীপ্ত চক্রবর্তী কান্ত
জানান, সোমবার বিকেলে গোয়ালন্দ পৌরসভার ২ নম্বর ওয়ার্ড
আওয়ামীলীগের কাউন্সিল শেষে রাজবাড়ী ফিরছিলেন তারা। ঢাকা-খুলনা
মহাসড়কের জমিদার ব্রীজ এলাকায় আসলে সাত থেকে আটটি মোটর
সাইকেলে হেলমেট পড়া ১০/১২ জন যুবক তাদের উপর হামলা করে।
হাতুরি ও দেশীয় অস্ত্র দিয়ে প্রথমে তাদের প্রাইভেট কারটি ভাঙচুর করে।
এরপর গাড়ি থেকে তাদের নামিয়ে পিটিয়ে জখম করে। তিনি আরো
জানান, হামলাকারীরা উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক নুরু
মন্ডলকে বাদ দিয়ে কোন কমিটি গোয়ালন্দে করা যাবে না বলে হুমকি দিতে
থাকে।


মঙ্গলবার দুপুরে গোয়ালন্দ উপজেলা আওয়ামীলীগ কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত
সাংবাদিক সম্মেলনে উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক নুরুল

ইসলাম মন্ডল বলেন, একটি কুচক্রি মহল ঘোলাপানিতে মাছ শিকারের চেষ্টা
করে দলের ক্ষতি করতে চাচ্ছে। তার ভাবমুর্তি ক্ষুন্ন করতে হামলাকালে
তার নাম ব্যবহার করেছে। আগামী ২৫ জুলাই ইউপি নির্বাচনে তিনি নৌকা
প্রতিক নিয়ে চেয়ারম্যান পদে প্রার্থী হয়েছেন। তার নির্বাচনী ইমেজ ক্ষুন্ন
করতেই তার নাম ব্যবহর করা হয়ে থাকতে পারে।

এসময় তিনি দ্রুত সময়ের মধ্যে সঠিক তদন্ত করে হামলাকারীদের গ্রেফতারের দাবি জানান। সাংবাদিক সম্মেলনে তিনি ছাড়াও বক্তব্য রাখেন, রাজবাড়ী জেলা
আওয়ামীলীগের সদস্য নির্মল কুমার চক্রবর্তী, উপজেলা আওয়ামীলীগের
যুগ্ন সাধারন সম্পাদক আতিকুজ্জামান সেন্টু, পৌর আওয়ামীলীগের
সভাপতি মোকছেদ আলী বিশ্বাস, সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান গোলাম
মাহবুবুর রাব্বানী, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারন সম্পাদক ও
উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান আসাদুজ্জামান চৌধুরী, সভাপতি
ফরিদুল ইসলাম, উপজেলা যুবলীগের যুগ্ন সাধারন সম্পাদক রফিকুল
ইসলাম সালু প্রমুখ। এসময় আওয়ামীলীগের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ
উপস্থিত ছিলেন।


গোয়ালন্দ ঘাট থানার ওসি এজাজ শফী জানান, এ ঘটনায় মঙ্গলবার
বিকেলে অজ্ঞাত ১৭/১৮ জনকে আসামী করে মামলা দায়ের হয়েছে। পুলিশ
ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে বিষয়টি অত্যন্ত গুরুত্ব সহকারে তদন্তকাজ শুরু
করেছে।

Comments

comments